ক্যাম্পাসলিড নিউজ

ইবি শিক্ষক সমিতির সভাপতি ড. আনোয়ার, সম্পাদক ড. মামুনুর

ইবি প্রতিনিধি:

ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় (ইবি) শিক্ষক সমিতির কার্যনির্বাহী পরিষদ নির্বাচন-২০২৩ সম্পন্ন হয়েছে। এতে আওয়ামীপন্থী শিক্ষকদের সংগঠন শাপলা ফোরামের বিভক্ত প্যানেল থেকে ইসলামের ইতিহাস ও সংস্কৃতি বিভাগের অধ্যাপক ড. আনোয়ার হোসেন (১২১ ভোট) সভাপতি এবং শাপলা ফোরাম মনোনীত প্যানেল থেকে ইংরেজি বিভাগের অধ্যাপক ড. মামুনুর রহমান (১২১ ভোট) সাধারণ সম্পাদক হিসেবে নির্বাচিত হয়েছেন।

এছাড়া আওয়ামীপন্থী শিক্ষকদের প্যানেল দুটি থেকে অন্য সবগুলো পদে নির্বাচিত হয়েছে। অন্যদিকে জামায়াতপন্থি শিক্ষকদের প্যানেল থেকে একজনও নির্বাচিত হয়নি।

বুধবার (১৯ ডিসেম্বর) ভোটগনণা শেষে রাত ১০ টায় নির্বাচনের ফলাফল ঘোষণা করেন নির্বাচনের রিটার্নিং অফিসার অধ্যাপক ড. মিজানুর রহমান।
এর আগে সকাল ১০ টা থেকে দুপুর ২টা পর্যন্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের অনুষদ ভবনের ৪২৯ নম্বর কক্ষে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়। এতে ৪০৮ জন শিক্ষকের মধ্যে ২৮২জন ভোটাধিকার প্রয়োগ করেন। এর মধ্যে ৬টি ভোট বাতিল বলে গণ্য হয়।

আওয়ামীপন্থী শিক্ষকদের সংগঠন শাপলা ফোরামের বিভক্ত প্যানেল (ড. আনোয়ার -ড. আনোয়ারুল প্যানেল) থেকে নির্বাচিত অন্যরা হলেন – সহ-সভাপতি অধ্যাপক ড. শাহাদৎ হোসেন আজাদ (১২৩), কার্যনির্বাহী সদস্য অধ্যাপক ড. শাহজাহান মন্ডল (১২৭), অধ্যাপক ড. দেবাশীষ শর্মা (১১১), অধ্যাপক ড. আসাদুজ্জামান ( ১১২), সহযোগী অধ্যাপক ড. আমজাদ হোসেন ( ১২২), সহকারী অধ্যাপক মাজেদুল হক (১২০)।

অন্যদিকে শাপলা ফোরামের মনোনীত প্যানেলের নির্বাচিত অন্যরা হলেন যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক ড. ধনঞ্জয় কুমার (১১২), কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক ইব্রাহিম আব্দুল্লাহ (১১৯)। এছাড়া কার্যনির্বাহী সদস্যরা হলেন অধ্যাপক ড. আহসান-উল- আম্বিয়া (১২৬), অধ্যাপক ড. মিয়া মোঃ রাসিদুজ্জামান (১১৫), অধ্যাপক ড. আনিছুর রহমান (১২৬), সহযোগী অধ্যাপক কে.এম. শরফুদ্দিন (১২৫), সহকারী অধ্যাপক সাহিদা আখতার (১১৪)।

শিক্ষক সমিতির নবনির্বাচিত সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক ড. মামুনুর রহমান বলেন, ‘নির্বাচিত হওয়ার পর থেকেই আমাদের উপর কিছু দায়িত্ব ও কর্তব্য আরোপিত হয়। সেই দায়িত্ব ও কর্তব্য পালনে কাজ করে যাবো। বিশ্ববিদ্যালয়ে একাডেমিক কার্যক্রম সুন্দর ও সমুন্নত রাখতে, আরও উন্নত করতে কাজ করে যাবো।’

নবনির্বাচিত সভাপতি অধ্যাপক ড. আনোয়ার হোসেন বলেন, ‘উৎসবমুখর পরিবেশের মধ্য দিয়ে এবারের নির্বাচন সম্পন্ন হয়েছে। আমি সকল শিক্ষককে সাথে নিয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের সার্বিক উন্নয়নে কাজ করে যাবো। বিশ্ববিদ্যালয়ের নীতি নির্ধারকদের মতামতের ভিত্তিতে কাজ করবো।’

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button

You cannot copy content of this page