সারাদেশ

যৌতুক, মাদক ও সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে প্রতিরোধ গড়ে তুলতে হবে: সাইয়্যিদ সাইফুদ্দীন আহমদ আল্-হাসানী মাইজভাণ্ডারী

বাংলাদেশ সুপ্রিম পার্টির (বিএসপি) চেয়ারম্যান, মাইজভাণ্ডার শরীফের সাজ্জাদানশীন সাইয়্যিদ সাইফুদ্দীন আহমদ আল্- হাসানী মাইজভাণ্ডারী বলেছেন, মাইজভাণ্ডার শরীফ রাসূলেপাকের (দ.) আদর্শ ধারণ করে সাম্য, ন্যায় প্রতিষ্ঠায় কাজ করে যাচ্ছে। এ দরবার সবসময় মানবতার সেবায়, অন্যায়ের বিরুদ্ধে নিয়োজিত। ধর্মীয় শিক্ষার পাশাপাশি তরিকা-এ-মাইজভাণ্ডারীয়া সমাজ সংস্কারে অবদান রাখছে। মাদক, যৌতুক, সন্ত্রাস, সাম্প্রদায়িক দ্বন্দ্ব, সকল প্রকার বৈষম্য প্রতিরোধে মাইজভাণ্ডার শরীফের মহাত্মাগণ নিরলসভাবে কাজ করে চলেছেন। একবিংশ শতকে মাদক, সন্ত্রাসের করালগ্রাসে যুবকরা বিপথগামী হয়ে যাচ্ছে। তরুণরা সুপথে না থাকলে দেশের ভবিষ্যৎ শঙ্কার সম্মুখীন হয়। যৌতুক আমাদের সমাজে একটি অনিবার্য রীতিতে পরিণত হয়েছে। যৌতুকের কারণে নারীরা অবহেলা, অবজ্ঞা, সহিংসতার শিকার হচ্ছেন। অথচ ইসলাম নারীদের উচ্চ মর্যাদা ও অধিকারের সুরক্ষা দিয়েছে। আমরা যদি দেশ-জাতিকে সমৃদ্ধির পথে এগিয়ে নিতে চাই, তবে অবশ্যই নারীদের যথাযথ সম্মান, শিক্ষা ও কর্মক্ষেত্রে তাদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে হবে।

১০ জানুয়ারি, ২০২৩, মঙ্গলবার রাতে চট্টগ্রাম চকবাজারস্থ মাইজভাণ্ডার মন্জিলের সম্মুখ মাঠে কাপাসগোলা মহল্লাবাসীর আয়োজনে পবিত্র ঈদ-এ-মিলাদুন্নবী (দ.) উপলক্ষ্যে আয়োজিত আজিমুশশান সুন্নী মাহফিলে মেহমান-এ-আলার বক্তব্যে তিনি এ আলোচনা করেন। প্রধান অতিথির বক্তব্যে চট্টগ্রাম জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান, এটিএম পেয়ারুল ইসলাম সাইয়্যিদ সাইফুদ্দীন আহমদ আল্-হাসানী মাইজভাণ্ডারীর মানবিক ও সমাজ সংস্কারমূলক কার্যক্রমের প্রশংসা করে বলেন, মাইজভাণ্ডার শরীফ এ দেশের মাটি ও মানুষের সাথে সম্পৃক্ত থেকে দেশের উন্নয়ন, অগ্রযাত্রায় অবদান রেখে আসছে। মহান মুক্তিযুদ্ধে সক্রিয় অংশগ্রহণের পাশাপাশি সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির বাংলাদেশ বিনির্মাণে তারা অগ্রণী ভূমিকা রেখেছেন। প্রত্যেক ধর্মীয় নেতা, প্রতিষ্ঠানের উচিত ধর্মীয় বার্তার প্রচার প্রসারের পাশাপাশি মানুষকে তার নাগরিক দায়িত্ব সম্পর্কে সচেতন করে তোলা।

মোঃ আজিজুল হক মঞ্জুর সভাপতিত্বে প্রধান বক্তা হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, পীরে তরিকত আল্লামা আবুল কাশেম নূরী। বিশেষ অতিথি ছিলেন, আলহাজ্ব মোহাম্মদ ইকবাল রিসালপুরী মাইজভাণ্ডারী, আলহাজ্ব এ্যাডভোকেট কাজী মহসীন চৌধুরী, হাজি মোহাম্মদ সেলিম রহমান, আমিনুল হক রমজু, ১৬নং চকবাজার ওয়ার্ড মোহাম্মদ নূর মোস্তফা টিনু, আবু আহমেদ, মোঃ বোরহান উদ্দিন, দেলোয়ার হোসেন ফরহাদ, আলহাজ্ব তৌহিদুল কাদের চৌধুরী, আলহাজ্ব এরশাদ মাহমুদ, কাজী মোঃ শহীদুল্লাহ্, আলহাজ্ব ইউসুফ শরীফ।

আলোচনায় অংশগ্রহণ করেন, মুফতী বাকি বিল্লাহ্ আল-আযহারী, মাওলানা আহমদুল হক মাইজভাণ্ডারী, অধ্যাপক মাওলানা আবদুল মান্নান আশরাফি, হাফেজ মাওলানা নেছার আহমদ আশরাফি, মুফতি মাকসুদুর রহমান মাইজভাণ্ডারী, হাফেজ মাওলানা নাজের হোসাইনসহ বিশিষ্ট ওলামায়ে কেরাম, রাজনৈতিক, সামাজিক নেতৃবৃন্দ, খলিফাবৃন্দ, আন্জুমানে রহমানিয়া মইনীয়া মাইজভাণ্ডারীয়া ও মইনীয়া যুব ফোরামের বিভিন্ন পর্যায়ের নেতৃবৃন্দ আলোচনা অংশগ্রহণ করেন।

মাহফিল শেষে সর্বমানবতার শান্তি ও কল্যাণ কামনা করে বিশেষ মুনাজাত করেন মাইজভাণ্ডার দরবার শরীফের সাজ্জাদানশীন সাইয়্যিদ সাইফুদ্দীন আহমদ মাইজভাণ্ডারী (মা.জি.আ.)।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button

You cannot copy content of this page