লাইফস্টাইল

বাড়িতে চিকেন বান তৈরির সহজ রেসিপি

লাইফস্টাইল ডেস্ক:

দোকান থেকে চিকেন বান খেতে বেশি জরুরি নয়, যেটি আপনি নিজেই তৈরি করতে পারেন। এটি বাইরে থেকে কিনতে গেলে খরচ বেশি হতে পারে এবং স্বাস্থ্যের জন্যও সমস্যার সৃষ্টি হতে পারে। তবে, আপনি নিজেই এই চিকেন বান তৈরি করে স্বাদ উপভোগ করতে পারেন। এই রেসিপি খুবই সহজ এবং তৈরি করা যায় সহজে। এবং যেহেতু এটি আপনি নিজের হাতে তৈরি করতে পারেন, আপনি নিজের পছন্দ মতো স্বাদে তৈরি করতে পারেন। চলুন জেনে নেই চিকেন বান তৈরির এই সহজ রেসিপি-

যে উপকরণ দরকার:

ডো তৈরির জন্য:

ময়দা – ১ কাপ
ইস্ট – ১ চা চামচ
চিনি – ১ চা চামচ
লবণ – ১/২ চা চামচ
দুধ – ১ কাপ
বাটার – ৪ টেবিল চামচ
ডিম – ১টি

কিমা তৈরির জন্য:

মুরগির কিমা – ১ কাপ
পেঁয়াজ কুচি – ১ কাপ
টমেটো সস – ১ টেবিল চামচ
কাঁচা মরিচ কুচি – ১ টেবিল চামচ
গোলমরিচ গুঁড়া – ১/২ চা চামচ
ঘি/বাটার – ৩ টেবিল চামচ
দুধ – ১/২ কাপ
ময়দা – ১ চা চামচ
আদা রসুন বাটা – ১ চা চামচ

প্রণালী:

কিমা তৈরির জন্য:

মুরগির কিমা, পেঁয়াজ কুচি, টমেটো সস, কাঁচা মরিচ কুচি, গোলমরিচ গুঁড়া, ঘি/বাটার, দুধ, ময়দা, আদা রসুন বাটা সবগুলি উপকরণ দিয়ে একটি পাত্রে ভুনুন। মুরগির কিমা ভাজা ভাজা হওয়া পর্যন্ত ভুনুন। কিমা ভাজার সময়ে ময়দা দিয়ে ভালো করে সব নেড়ে মিশিয়ে নিন। সবশেষে ১/২ কাপ দুধ দিয়ে কিমা কিছুক্ষণ ঢেকে রাখুন। এরপর দুধ শুকিয়ে এলে কিমা চুলা থেকে নামিয়ে নিন। ময়দা এবং লবণ একসঙ্গে মেখে নিন। এখন ১ কাপ দুধের মধ্যে চিনি এবং ইস্ট দিয়ে পাঁচ মিনিট অপেক্ষা করুন। ইস্ট ফুলে উঠলে তাতে ময়দা দিয়ে দিন। এখন ময়দা খুব ভালো করে মাখিয়ে নরম ডো তৈরি করে নিন। ডো নরম হলে ভয় পাওয়ার কিছু নেই, এতে ব্রেড সফট হবে।
ডো তৈরির পর:

ডো তৈরি হলে ১ ঘণ্টা ফ্রিজে কাপড় দিয়ে ঢেকে রাখতে হবে। ১ ঘণ্টা পর ডো আবার একটু হালকা ময়দা ছিটিয়ে দিয়ে মাখুন। এবার আধা ঘণ্টা স্বাভাবিক তাপমাত্রায় ডো কাপড় দিয়ে ঢেকে রেখে দিন ফুলে উঠার জন্য। ডো ফুলে উঠলে সমান ভাগে গোল গোল বল বানিয়ে নিন। এখন এই বলগুলোর ভেতর চিকেনের কিমা ভরে দিয়ে হাত দিয়ে গোল করে নিন। সব বল তৈরি হয়ে গেলে ২০ মিনিটের জন্য ঢেকে রেখে দিন। বলগুলো ফুলে উঠলে ১ টা ডিম ফেটে বলের উপর ব্রাশ করে দিন। এবার ১৬০ ডিগ্রিতে ৩০ মিনিট বেক করে নিন। এই স্বাদমজাদার চিকেন বান তৈরি হয়ে গেল।

আপনি এই সুস্বাদু চিকেন বান তৈরির জন্য এই সহজ রেসিপি অনুসরণ করতে পারেন। এটি বানানো সহজ এবং ঘরের মাধ্যমে তৈরি করা যায়, তাহলে আপনি নিজের পছন্দের স্বাদে এটি উপভোগ করতে পারেন।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button

You cannot copy content of this page